পি আর পি থেরাপি কিভাবে কাজ করে
ভিডিওস্বাস্থ্য তথ্য

চুলের পি আর পি চিকিৎসা। পদ্ধতি, সুবিধা ও খরচ

পি আর পি থেরাপি কি?

পিআরপি থেরাপি মানে প্লাজমা রিচ প্রোটিন থেরাপি। চুল গজানোর অত্যাধুনিক ও ন্যাচারাল চিকিৎসা। এ চিকিৎসায় রোগীর দেহের রক্ত আহরণ করে তা থেকে কিছু উপাদান যন্ত্রের মাধ্যমে আলাদা করা হয়। তারপর এই প্লাজমা সমৃদ্ধ রক্তের অংশ সিরিঞ্জের মাধ্যমে পড়ে যাওয়া চুলের গোঁড়ায় প্রবেশ করিয়ে দেওয়া হয়। সাধারণত প্রথম তিন মাস প্রতিমাসে একবার বা দুইবার করে এই চিকিৎসা দেওয়া হয়।

PRP এর মানে কি ?

PRP এর মানে হচ্ছে Platelet Rich Plasma বা প্লাটিলেট রিচ প্লাজমা। আপনার রক্তেই আছে আপনার চুল গজানোর ঔষধ ।   চুল গজানোর যুগান্তকারী চিকিৎসা হলো PRP—-পি আর পি— প্লাটিলেট রীচ প্লাজমা। এ থেকেই আবিষ্কৃত চুল গজানোর যুগান্তকারী চিকিৎসা PRP রক্তের Platelet বা অণুচক্রিকায় আছে চুলের বিভিন্ন ধরনের গ্রোথ ফ্যাক্টর, যা নতুন চুল গজায় ও চুল মোটা করে ।

কিভাবে পি আর পি দেওয়া হয়?

চিকিৎসা শুরুর আগে TrichoScan Machine দিয়ে চুলের শিকড় বা Root intact আছে কি না পরীক্ষা করে নিতে হবে ।
রোগীর শরীর থেকে পর্যাপ্ত পরিমাণ ব্লাড বা রক্ত কালেকশন করে টেস্টটিউবে নিয়ে সেটা সেন্ট্রিফিউজ মেশিনের সাহায্যে কয়েকধাপে রক্তের পি আর পি আলাদা করা হয়। এরপর চুল পড়ে যাওয়া মাথার স্কিনে চিকন Insulin Syringe দিয়ে এনেসথেসিয়া দিয়ে অবশ করে নেওয়া হয়। তারপর আবার ইনসুলিন সিরিঞ্জ দিয়ে ইনজেকশন হিসাবে দেয়া হয়। পি আর পি চুল পড়া রোগীর নিজের রক্ত থেকে তৈরী করা হয় বলে এটি ১০০% নিরাপদ এবং কোন ধরনের সাইড এফেক্ট হয় না।

পি আর পি দেওয়ার জন্য কোন ডাক্তারের কাছে যেতে হবে?

যেকোনো স্কিন বিশেষজ্ঞ বা ডার্মাটোলজিস্ট এই চিকিৎসা দিতে পারেন। অভিজ্ঞ চর্ম বা স্কিন বিশেষজ্ঞ ডার্মাটোসার্জনের কাছে গেলেই প্রথমে আপনার চুল ইভ্যালুয়েশন করে দেখবেন এবং প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিয়ে আপনার পি আর পি সেশন শুরু করবেন।

কেন চুল পড়ায় পি আর পি সেরা?

১. এটি ১০০% নিরাপদ এবং কোন ধরনের সাইড এফেক্ট নেই ।

২. নতুন চুল গজাতে সাহায্য করে।

৩. চুলের বৃদ্ধিতে ও চুল মোটা হতে সাহায্য করে ।

৪. চুল পড়া কমায় ।

বাংলাদেশে পি আর পি চিকিৎসার খরচ?

যেকোনো স্কিন ক্লিনিক বা সেন্টারে একজন বিশেষজ্ঞ ডার্মাটোসার্জন বা চর্ম রোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তার প্রতি সেশনে ২০০০ (দুই হাজার) টাকা থেকে ৩০০০ (তিন হাজার) টাকা চার্জ করে থাকেন। স্থানভেদে এটি আরো কম বেশি হতে পারে।

পি আর পি সেশন কতবার নিতে হবে?

একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের প্রোপার রেজাল্ট বা সঠিক ফলাফল পাওয়ার জন্য ১৪ থেকে ৩০ দিন পর পর  মোট  ৬ থেকে ১২ বার পি আর পি সেশন নিতে হবে।    এতে করে পড়ে যাওয়া চুলের ৫০% থেকে ৮৮% নতুন করে গজাবে, যদি শিকড় বা Root intact বা ভালো থাকে।

পি আর পিতে গজানো চুল কতদিন থাকবে?

পি আর পি তে গজানো চুল নিয়মিত ঔষধ সেবনে বহু বৎসর থাকবে। যত দিন ঔষধ খাবেন ও লাগাবেন, তত দিন চুল থাকবে সাধারণত ৫০ বছর বয়স পর্যন্ত।

নিচের ভিডিওতে

ডাঃ এস এম বখতিয়ার কামাল
চুল  বিশেষজ্ঞ  ও ডার্মাটোসার্জন 
এমবিবিএস; ডিডিভি; এমডি 
সহকারী অধ্যাপক, ঢাকা মেডিকেল কলেজ 

বিস্তারিত প্র্যাকটিক্যাল দেখিয়েছেন ও বলেছেন!

আপনার মতামত দিন!